ভোলার মদনপুর ইউনিয়নে অস্ত্রের মহড়া!স্বতন্ত্র প্রার্থীর অফিস দখল করে নৌকার পোষ্টার

0
20
আমাদের ফেইসবুক পেইজ এ লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন।

স্টাফ রিপোর্টার:-
ভোলার মধ্য মেঘনার ইউনিয়ন মদনপুরে আসন্ন ইউপি নির্বাচনকে ঘিরে টানটান উত্তেজনা চলছে। সেখানে স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনী অফিস দখল করে তাতে নৌকা প্রতীকের পোষ্টার লাগানোর অভিযোগ উঠেছে। গত বুধবার রাতে সেখানকার তালুকদার বাজারে নৌকা প্রতীক ও স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনী প্রচার অফিস ভাংচুরের ঘটনা ঘটে। এতে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থী পরস্পরকে দায়ী করেন। এ ঘটনায় দৌলতখান থানায় পাল্টাপাল্টি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন তারা। ওইদিন রাতে সেখানকার বর্তমান চেয়ারম্যান নাসিরুদ্দিন নান্নু’র সমর্থিত ইউপি সদস্য আলতু মিয়ার বাড়ীতেও হামলা-ভাংচুরের অভিযোগ উঠে। গুলি বর্ষনের ঘটনাও ঘটে ওই চরে। ঘটনার পর বৃহস্পতিবার (২৭ অক্টোবর) সেখানে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে ফিরে যাওয়ার পরপরই আ’লীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী নাসিরুদ্দিন নান্নুর নেতৃত্বে স্বতন্ত্র প্রার্থী জামাল হোসেন ওরফে চকেট জামালের নির্বাচনী প্রচার অফিস দখল করে সেখানে নৌকা প্রতীকের পোষ্টার-ব্যানার ও চেয়ার-টেবিল বসানো হয়েছে। এমন অভিযোগ এনে জামাল হোসেন গণমাধ্যমকে জানান,ওই অফিসটি দীর্ঘ দুইযুগ ধরে তিনি ঘর মালিকের কাছ থেকে ভাড়া নিয়ে ব্যাবসা করছেন। সরেজমিন তথ্যানুসন্ধানে মদনপুরের তালুকদার বাজারে গেলে সেখানকার শ্রেনী-পেশার লোকজনের সাথে কথা হলে তারা জানান,এই ঘরটি স্বতন্ত্র প্রার্থী জামাল হোসেন ওরফে চকেট জামালের ভাড়া নেয়া দোকান। ঘটনাস্থলে অবস্থানরত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী নাসিরুদ্দিন নান্নুর সাথে কথা হলে তিনি গণমাধ্যমের কাছে উক্ত অফিসটি তার নামে ঘর মালিকের কাছ থেকে ভাড়া নেয়া বলে দাবী করেন। কিন্তু তিনি ঘর ভাড়া নেয়া সংক্রান্ত কোনপ্রকার ডকুমেন্ট দেখাতে পারেননি। তবে উক্ত ঘরের মালিক আব্দুল গনি মিয়া জানান,তিনি বহুবছর আগেই ব্যবসায়ী জামাল হোসেনের কাছে ঘরটি ভাড়া দিয়েছেন। জোড়পূর্বক ঘর দখলের বিষয়ে তিনি পুলিশ সুপার ও দৌলতখান থানার ওসি বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন বলেও গণমাধ্যমকে অবহিত করেন। দৌলতখান থানার অফিসার ইনচার্জ বজলার রহমান জানান,সেখানে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। কারো ঘর কিম্বা নির্বাচনী অফিস দখল করা হলে পুলিশ ব্যবস্থা নেবেন বলে জানান তিনি। বর্তমানে সেখানে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকরা মহড়া দেয়ায় চরবাসীর মধ্যে চরম আতংক বিরাজ করছে বলে জানান স্থানীয়রা।

আমাদের ফেইসবুক পেইজ এ লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন।