ভোলায় কিছুতেই থামছেনা হেলাল মেম্বারের অপকর্ম! মেম্বার পুত্র কর্তৃক ফিল্মি স্টাইলে চাচিকে শিলতাহানীর অভিযোগ

0
92
আমাদের ফেইসবুক পেইজ এ লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন।

ভোলা প্রতিনিধি।
ভোলায় কিছুতেই থামছেনা হেলাল নামের এক অত্যাচারি মেম্বারের অপকর্ম। একেরপর এক অপকর্মের ধারাবাহিকতায় আপন চাচিকে ফ্লিমি স্টাইলে টেনে হেচরে হাত ভেঙ্গে দিয়ে যৌনাঙ্গে ও ব্রেস্টে আঘাত করেছে বলে সেই মেম্বারের ছেলে মোঃ হাসিবের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে।
বৃহস্পতিবার বিকাল ৩ টার সময়
ভোলা সদর উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডে এঘটনা ঘটে।
হামলায় আহত মোসাঃ ইয়ানুর বেগম জানায়, দীর্ঘ দিন যাবত ধরে তার বসত ভিটা দখলের পায়তারা করে আসছে হেলাল মেম্বার। এবিষয় নিয়ে তাকে কিছু বললে প্রায় সময় হেলাল মেম্বার ও তার ছেলে হাসিব তাকে মারধোর করে।
ঘটনার দিন তার ভাসুর পুত্র এবং হেলাল মেম্বারের ছেলে মোঃ হাসিব (৩০) জমি জমা সংক্রান্ত জের ধরে নারিকেল বাগানের ডাব পাড়া বিষয় নিয়ে ইয়ানুরের সাথে কথা কাটা কাটি করেন। এক পর্যায়ে হাসিব উত্তেজিত হয়ে চাচি ইয়ানুরের উপর সন্ত্রাসী কায়দায় হামলা চালিয়ে
তার হাত ভেঙ্গে যৌনাঙ্গে ও ব্রেস্টে আঘাত করে। তার ডাক চিৎকারে আশেপাশের লোকজন ছুটে এলে হাসিব পালিয়ে যায়। এসময় ইয়ানুর মাটিতে লুটিয়ে পরলে তাকে পরিবারের লোকজন মুমুর্ষ অবস্থায় ভোলা সদর হাসপাতালের ভর্তি করেন।
আহত ইয়ানুরের স্বামী আলাউদ্দিন হাওলাদার বলেন, আমার স্ত্রীর উপর অহেতুক আমার ভাতিজা হাসিব হামলা চালিয়ে তাকে মারাত্মক আহত করেছে, তার শারিরিক অবস্থা বেশি ভালো না।
স্থানীয়রা জানায়, এলাকায় এমন কোন অপকর্ম নেই যেটা হেলাল মেম্বার করেনা, তার বিরুদ্ধে ছাগল চুরি, গরু চুরি থেকে শুরু করে মাদকের পর্যন্ত অভিযোগ রয়েছে। এসব বিষয়ে তার এবং তার পরিবারের বিরুদ্ধে বেশ কিছু মামলা মোয়াক্কদমা রয়েছে। যার নং যথাক্রমে ৩২৮/২১, ৪১৯/২১, ৫৫২/২০, ৫৪৭/২০, ১৪/২২, ২১১/২১। এসব মামলা – মোয়াক্কদমা ছাড়াও তার বিরুদ্ধে অর্ধ শতাধিক অভিযোগ রয়েছে।
এ ব্যাপারে অভিযুক্ত হাসিবের সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।
অপর অভিযুক্ত হাসিবের বাবা হেলাল মেম্বার সাংবাদিকদের কাছে নিজের ছেলেকে নির্দোষ বলে দাবী করেন।
ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন জানান, থানায় কেউ লিখিত অভিযোগ করেনি, অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।
এদিকে হেলাল মেম্বারের বিভিন্ন অপকর্মের বিরুদ্ধে ক্ষেপে উঠেছে এলাকাবাসী, তারা বলছেন আর কত অপকর্ম করলে থামবে হেলাল মেম্বার। বিভিন্ন ঘটনায় তদন্ত সাপেক্ষে হেলাল মেম্বার ও তার পরিবাকে বিচারের আওতায় আনার জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি জানিয়েছেন এলাকাবাসী।

আমাদের ফেইসবুক পেইজ এ লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন।